বৃহস্পতিবার, ২৩ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৫:৩৯ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
আনোয়ারা পচ্ছিম রায়পুর লোকনাথ সেবাশ্রমে ত্রিকালদর্শী শ্রীশ্রী লোকনাথ ব্রহ্মচারী বাবার ২৯১ তম আবির্ভাব দিবস সম্পন্ন আনোয়ারায় সৎসঙ্গের বৃক্ষ রোপণ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত বাঁশখালী ঋষিমঠের অনাথ শিশুদের পাশে প্রকৌশলী বিপ্লব দাশ বাপ্পী সাম্প্রদায়িক হামলার প্রতিবাদে বৃষ্টি উপেক্ষা করে ঐক্যবদ্ধ সনাতন সমাজের মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ বান্দরবানে সংখ্যালঘুদের উপর নির্যাতনের প্রতিবাদে ও মানববন্ধনে পুলিশের বাধা। আবারও প্রতিমা ভাঙচুর  বগুড়া শেরপুরে চন্ডিজান দক্ষিণপাড়া কালীমন্দিরের শ্রীমঙ্গলে খুলনা জেলার রুপসায় হিন্দু পরিবারে হামলা, লুটপাট ও ভাংচুরের প্রতিবাদে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত। বাঁশখালী ইউএনও সাথে করোনা মৃতদেহ সৎকার সংঘের সৌজন্য সাক্ষাৎ গাজীপুর কালিয়াকৈর ভৃঙ্গরাজ গ্রামের সপ্তশতী ফাউন্ডেশনের উদ্যোগে ত্রাণ সামগ্রী ও ঔষধ বিতরণ ধামরাইয়ে রক্ত জবা তরুণ সংঘের উদ্যোগে চারশত বছরের সুপ্রাচীন শ্রীশ্রী যশোমাধব মন্দিরে পরিচ্ছন্নতা কর্মসূচি পালিত

আবারও প্রতিমা ভাঙচুর  বগুড়া শেরপুরে চন্ডিজান দক্ষিণপাড়া কালীমন্দিরের

Spread the love

 

সোমবার (৯ আগস্ট) দিবাগত রাতের কোনো এক সময় এ ঘটনা ঘটে। আজ মঙ্গলবার (১০ আগস্ট) বেলা ১২টার দিকে মন্দির কমিটির পক্ষ থেকে থানায় একটি অভিযোগ দেওয়া হয়েছে।মন্দির কমিটির সাধারণ সম্পাদক শ্যামল দাস বলেন, উপজেলার গাড়ীদহ ইউনিয়নের চন্ডিজান দক্ষিণপাড়া এলাকায় অবস্থিত কালীমন্দিরটিতে দীর্ঘদিন ধরে আমরা পূজা-অর্চনা করে আসছি। এক্ষেত্রে স্থানীয় লোকজন সবাই আমাদের পূজা-অর্চনা করতে সহযোগিতা করে আসছে। কারো সঙ্গে আমাদের কোনো শক্রতাও নেই। এরপরও এমন ঘটনা ঘটলো। যা কল্পনাও করতে পারছি না।

তিনি বলেন, প্রতিদিনের ন্যায় মঙ্গলবার সকালে এসে দেখি মন্দিরের প্রতিমাগুলো ভাঙা। এছাড়া কালী প্রতিমার কিছু অংশ অন্যত্র ফেলে দেওয়া হয়েছে। সম্ভবত রাতের কোনো এক সময় দুর্বৃত্তরা মন্দিরটিতে হানা দিয়ে এই ঘটনাটি ঘটিয়েছে।উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. ময়নুল ইসলাম বলেন, খবর পেয়েই ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। পাশাপাশি এই ঘটনায় জড়িতদের চিহ্নিত করে তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নিতে পুলিশকে নির্দেশ দেওয়া হয়েছে।

শেরপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শহিদুল ইসলাম বলেন, ঘটনাটি সর্বাধিক গুরুত্বের সঙ্গে খতিয়ে দেখা হচ্ছে। সেই সঙ্গে ঘটনায় জড়িতদের চিহ্নিত করে দ্রুততম সময়ের মধ্যেই আইনের আওতায় আনা সম্ভব হবে বলে আশাবাদ ব্যক্ত করেন তিনি।

এদিকে, এ ঘটনায় তীব্র ক্ষোভ করেছেন বগুড়া জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি দীলিপ কুমার দেব, উপজেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি নিমাই ঘোষ, সাধারণ সম্পাদক সংগ্রাম কুন্ডুসহ হিন্দু সম্প্রদায়ের একাধিক ধর্মীয় সংগঠনের নেতারা। তারা এই ঘটনার তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানান। সেই সঙ্গে ঘটনায় জড়িত দুর্বৃত্তদের চিহিৃত করে গ্রেপ্তারপূর্বক আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি নিশ্চিত করার জন্য সংশ্লিষ্টদের নিকট জোর দাবি করেন।



আমাদের ফেসবুক পেইজ